এক নজরে এবারের বাজেট

প্রকাশিত: ১০:০৮ পূর্বাহ্ণ, জুন ১২, ২০২০

নিউজ ডেস্ক:

জাতীয় সংসদে ২০২০-২১ অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেট উত্থাপন করেছেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল। এই বাজেটের চূড়ান্ত আকার (ব্যয়) ধরা হয়েছে ৫ লাখ ৬৮ হাজার কোটি টাকা। এটি জিডিপি‘র ১৭ দশমিক ৯ শতাংশ। এতে রাজস্ব আয়ের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে ৩ লাখ ৭৮ হাজার কোটি টাকা, যার মধ্যে জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) জন্য লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে ৩ লাখ ৩০ হাজার কোটি টাকা।

এই হিসাবে বাজেটে ঘাটতি ধরা হয়েছে ১ লাখ ৯০ হাজার কোটি টাকা। ঘাটতির পরিমাণ জিডিপি’র ৬ শতাংশ। বাজেটে মোট জিডিপি‘র আকার ৩১ লাখ ৭১ হাজার ৮০০ কোটি টাকা।

এবারের বাজেটে এনবিআর থেকে আয় ধরা হয়েছে ৩ লাখ ৩০ হাজার কোটি টাকা। এনবিআরের কর বহির্ভূত রাজস্ব আয় ধরা হয়েছে ১৫ হাজার কোটি টাকা। অন্যান্য খাত থেকে আয় ধরা হয়েছে ৩৩ হাজার কোটি টাকা।

২০২০-২১ অর্থবছরের ১ লাখ ৯০ হাজার কোটি টাকার ঘাটতি মোকাবিলায় অভ্যন্তরীণ খাত থেকে ঋণ নেওয়া হবে ১ লাখ ৯ হাজার ৯৮৩ কোটি টাকা। বৈদেশিক ঋণ নেওয়া হবে ৮০ হাজার ১৭ কোটি টাকা। অভ্যন্তরীণ উৎসের মধ্যে ব্যাংকিং খাত থেকে ঋণ নেওয়া হবে ৮৪ হাজার ৯৮৩ কোটি। এছাড়াও সঞ্চয়পত্র ও ব্যাংক বর্হিভূত খাত থেকে ২৫ হাজার কোটি টাকা আয়ের লক্ষ্য রয়েছে সরকারের।

আগামী অর্থবছরের বার্ষিক উন্নয়ন কর্মসূচিতে (এডিপি) বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে দুই লাখ পাঁচ হাজার ১৪৫ কোটি টাকা। এডিপি বহির্ভূত বিশেষ প্রকল্পে ব্যয় ধরা হয়েছে চার হাজার ৭২২ কোটি টাকা। কাজের বিনিময়ে খাদ্য কর্মসূচিতে ব্যয় করা হবে দুই হাজার ৬৫৪ কোটি টাকা।

অন্যদিকে, ২০১৯-২০ অর্থবছরের বাজেটে আকার (ব্যয়) ধরা হয়েছিল ৫ লাখ ২৩ হাজার ১৯০ কোটি টাকা, যা ছিল জিডিপির ১৮ দশমিক ১ শতাংশ। এতে রাজস্ব আয়ের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছিল ৩ লাখ ৭৭ হাজার ৮১০ কোটি টাকা। এর মধ্যে জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের মাধ্যমে আয় ধরা হয়েছিল ৩ লাখ ২৫ হাজার ৬০০ কোটি টাকা, যা জিডিপির ১১ শতাংশ। এনবিআর বর্হিভূত রাজস্ব আয় ধরা হয়েছিল ১৪ হাজার ৫০০ কোটি টাকা, যা জিডিপির ৫ শতাংশ। কর বর্হিভূত রাজস্ব আয় ধরা হয়েছিল ৩৭ হাজার ৭১০ কোটি টাকা, যা ছিল জিডিপির ১ দশমিক ৩ শতাংশ